চীনের ব্যবহৃত পোষাক থেকেও ছড়াতে পারে করোনা ভাইরাস

0
76

সিএনবি,নিউজ ডেস্কঃ

বর্তমান সময়ের আলোচিত ও বিপদজনক করোনা ভাইরাস যা চীন থেকে খুব সহজে ছড়িয়ে পড়ছে বিশ্বব্যাপি। এই করোনা ভাইরাসের জন্য বিশ্ব ব্যাপি নেয়া হচ্ছে কঠোর পদক্ষেপ। বিশেষ করে চীন থেকে আসা সকল পণ্য সহ মানুষ সহ সকল জিনিসের প্রতি বাড়িয়ে দেয়া হয়েছে অতিরিক্ত নজরদারি।

বিশেষ করে চীন থেকে আমদানি করা পুরাতন কাপডের দিকে ও উঠেছে ইশারা কারণ এই পুরান কাপড়ের মাধ্যমেও ছড়াতে মারাত্নক করোনা ভাইরাস তাই চীনের আমদানি করা পুরাতন কাপড় আমদানি বন্ধের দাবি জানিয়েছেন বিশেজ্ঞরা।

রাজধানীর রাস্তায় বের হলেই গুলিস্তান, নিউমার্কেট, বঙ্গবাজারসহ বাংলাদেশের বিভিন্ন শহরেই  ফুটপাতে পুরাতন বা আধা পুরতান কাপড়-চোপড় স্বল্প মূল্যে বিক্রী হয়। মূলত বিভিন্ন দেশের মানুষের ব্যবহৃত কোয়ালিটিফুল কাপড়ই আমাদের দেশে চলে আসে নাম মাত্র দামে বিক্রির জন্য।

কম দামে এই পোশাক পেয়ে মধ্যবিত্ত, দরিদ্র কিংবা উচ্চবিত্ত শ্রেণীর মানুষও তা কিনে ব্যবহার করেন। অনেকে সেই পোশাক কেনার পর গায়ে জড়িয়ে নেন, ধোয়ারও প্রয়োজন বোধ করে না। কিন্তু কেউ চিন্তাও করে না এটা জীবনের জন্য কতটা ভয়াবহ। বিশেষজ্ঞরা বলছেন এই কাপড় থেকে খুব সহজেই ছড়াতে পারে করোনা ভাইরাস।

রাস্তার পাশে কিংবা মার্কেটে পুরাত কাপড় বিক্রীর প্রচলন শুধু বাংলাদেশেই নয়, চলে বিশ্বের সকল দেশেই। ব্রিটিশ পত্রিকা ডেইলি মেইল তাদের এক রিপোর্ট প্রকাশ করেছে পুরনো কাপড়ে ও করোনা ভাইরাসের ঝুকি নিয়ে।  

তারা প্রতিবেদনটিতে সুন্ধরভাবেই উল্লেখ করেছেন, যেহেতু পোশাকটা সেকেন্ড হ্যান্ড তাই এটা অবস্যই আগে কেউ পরেছে। করোনা ভাইরাসের জীবানু বাতাশ, হাসি, কাশি, স্পর্শ কিবাং ব্যবহার্য্য দ্রব্যের মাধ্যমে ছড়াতে পারে খুব সহজে। তাই এর আগে যে পোশাকটি পরেছে সে যদি কোন ক্রমে নোবেল করোনা দ্বারা আক্রান্ত থাকে তবে ভাইরাস ঐ পোশাকের সাথে থাকাটা খুবই স্বাভাবিক।

অনেকেই ভাবতে পারেন পুরানো পোশাক কিনে সেটি ধুয়ে তার পরে পরলেই তো হলো। কিন্তু বাস্তবতা হচ্ছে যত ভালোভাবেই তা ধোয়া হোক না কেন তার পরও ভাইরাস তাড়ানো কঠিন।

করোনা ভাইরাস এখন মহামারী আকার ধারণ করলেও কয়েক মাস আসেই তা ছড়াতে শুরু করেছে। চীন থেকে আমাদের দেশে সব সময়ই পুরাতন কাপড় আসে এবং তা ফুটপাতে বিক্রী হয়। যদি কোন আক্রন্ত ব্যক্তির পোশাক বাংলাদেশে ঢুকে থাকে সেটাই অনেক ভয়াবহ খবর।

আপনি যদি পোশাকটি নাও কেনেন, কিন্তু দোকান থেকে ধরেও দেখেন তবে আপনার শরীরে চলে আসবে করোনার জীবানু। আর এই ভারইরাস ছড়িয়ে পরতে পারে গোটা দেশের মাঝেই। তাই চীন থেকে পুরাতন কাপড় আমদানি বন্ধের দাবি তুলেছে বিশেষজ্ঞরা।

এদিকে, দিন যতই গড়াচ্ছে ততই মহামরী আকার ধরাণ করছে নোবেল করোনা ভাইরাস। প্রতিনিয়ত বেড়ে চলছে মৃতের সংখ্যা। চীন ও চীনের বাইরে মিলিয়ে প্রায় সাড়ে ৪০০ জন মারা গেছে। 

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here